সিলেটের ডাকাত সর্দার আব্দুল হক সহযোগীসহ ঢাকায় গ্রেফতার

114
সিলেটের ডাকাত সর্দার আব্দুল হক সহযোগীসহ ঢাকায় গ্রেফতার
সিলেটের ডাকাত সর্দার আব্দুল হক সহযোগীসহ ঢাকায় গ্রেফতার

সিলেটের ডাকাত সর্দার আব্দুল হক ও তার এক সহযোগীকে ঢাকা থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। উন্নত তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে আজ মঙ্গলবার (৯ ফেব্রুয়ারি) ভোরে এক বিশেষ অভিযান চালিয়ে সিলেট জেলা গোয়েন্দা শাখার একদল পুলিশ তাদের আটক করে।

তারা হলো- সুনামগঞ্জ জেলার ছাতক থানার পুরান নোয়াকোট গ্রামের মৃত হাবিবুর রহমানের ছেলে আন্তঃজেলা ডাকাত সর্দার আব্দুল হক (৪৪) ও সিলেটের দক্ষিণ সুরমা থানাধীন মোমিনখলা গ্রামের মৃত তুরু মিয়ার ছেলে শফিউর রহমান আজিজ (৩৬)।

গ্রেফতারকৃত ডাকাতরা প্রায় ১০ বছর ধরে ডাকাতির সঙ্গে জড়িত। এর মধ্যে আব্দুল হক আন্ত:বিভাগীয় ডাকাত দলের সর্দার। তার বিরুদ্ধে ডাকাতি ও অস্ত্র আইনে মোট ১০ (দশ) টি মামলা আদালতে বিচার ও তদন্তাধীন।

সিলেট জেলা পুলিশ (মিডিয়া) জানায়, গত বছরের ১৪ ডিসেম্বর সিলেটের বিশ্বনাথে সংঘবদ্ধ একদল ডাকাত ডাকাতির প্রস্তুতিকালে জেলা পুলিশের অভিযানে ডাকাত সর্দার শিপন হাজারিকে আটক করে পুলিশ। এসময় তার কাছ থেকে ২ টি দেশিয় তৈরি পাইপগান, ১ টি গ্রিল কাটার ও ৯ রাউন্ড গুলি জব্দ করা হয়।

এ বিষয়ে ১৬ ডিসেম্বর বিশ্বনাথ থানায় মামলা (নং-১৪) দায়ের পূর্বক শিপনের সহযোগী ডাকাতদের গ্রেফতারের লক্ষ্যে জেলা গোয়েন্দা শাখা দক্ষিণ জোন বিশেষ গোয়েন্দা নজরদারি অব্যাহত রাখে। পাশাপাশি বিভিন্ন সময়ে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বিভিন্ন স্থানে অভিযান পরিচালনা করে। এরই ধারাবাহিকতায় মামলার এজাহারনামীয় পলাতক আসামি আন্তঃজেলা ডাকাত সর্দার আব্দুল হক (৪৪) ও তার সহযোগী শফিউর রহমান আজিজ (৩৬)-কে মঙ্গলবার ভোর সাড়ে ৫টায় সিলেট জেলা গোয়েন্দা শাখা (দক্ষিণ জোন)-এর একটি দল তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় ঢাকার তেজগাঁও থানাধীন ফার্মগেইটস্থ হোটেল গ্রিন প্যালেস ইন্টারন্যাশনাল থেকে গ্রেফতার করে।

এ বিষয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর ও মিডিয়া) মো. লুৎফর রহমান জানান, সিলেট জেলার পুলিশ সুপার মোহাম্মদ ফরিদ উদ্দিন পিপিএম-এর দিকনির্দেশনায় সিলেট জেলা গোয়েন্দা শাখার (দক্ষিণ জোন) অফিসার ইনচার্জ আশীষ কুমার মৈত্রের নেতৃত্বে ডিবি পুলিশ বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে ঢাকা থেকে ডাকাতদেরকে গ্রেফতার করে। এ ঘটনায় জড়িত অন্যান্য পলাতক ডাকাতদের গ্রেফতার করার জন্য অভিযান অব্যাহত রেখেছে গোয়েন্দা পুলিশ।