মিয়ানমারে আন্দোলনকারী ৯ নিহত, মোট ২৩৩

76

মিয়ানমারজুড়ে চলছে জান্তা সরকারবিরোধী আন্দোলন। গণতন্ত্রপন্থীদের দমনে কঠিন অবস্থান বজায় রেখেছে সেনাবাহিনীও। শুক্রবার দেশটিতে অন্তত ৯ আন্দোলনকারীকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। আতঙ্কের মধ্যে রয়েছেন দেশটির সাধারণ মানুষ। অনেকেই দেশ ত্যাগের চেষ্টা করছেন। পার্শ্ববর্তী রাষ্ট্র থাইল্যান্ড জানিয়েছে, তারা আশঙ্কা করছে যেকোনো সময় তাদের দেশে শরনার্থীর সংখ্যা বাড়তে শুরু করবে। এ খবর দিয়েছে সিএনএ।

খবরে বলা হয়, গত ১লা ফেব্রুয়ারি অভ্যুত্থান ঘটিয়ে ক্ষমতা দখল করে মিয়ানমারের সামরিক বাহিনী। বন্দি করে গণতন্ত্রপন্থী নেতা অং সান সুচিকে।এরপর অভ্যুত্থানের বিরুদ্ধে রাস্তায় নেমে আসে দেশটির জনগণ। ৬ ফেব্রুয়ারি থেকে তারা লাগাদার আন্দোলন করে যাচ্ছে। প্রথমে আন্দোলন দমনে নমনীয়তা দেখালেও এখন প্রায়শই গুলি চলছে আন্দোলন লক্ষ্য করে। এখন পর্যন্ত ২৩৩ জন আন্দোলনকারী প্রাণ হারিয়েছেন দেশটিতে। এরমধ্যে শুক্রবার নতুন করে মারা গেছেন ৯ জন। এরমধ্যে ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে রাস্তায়ই।

এর আগে জান্তা সরকারের মুখপাত্র জানিয়েছিল, নিরাপত্তা বাহিনী শুধুমাত্র যখন প্রয়োজন তখনই গুলি ছুঁড়েছে। তবে দেশটির প্রধান শহরগুলোতে প্রায় প্রতিদিনই গুলি হচ্ছে। সাবেক রাজধানী ইয়াক্সগুনে জারি করা হয়েচেহ মার্শাল ল। এরমধ্যেও আন্দোলন চলছে পুরোদমে। শহরের রাস্তাগুলো পরিণত হয়েছে যুদ্ধক্ষেত্রে। পুলিশের গুলির বিরুদ্ধে আন্দোলনকারীরা পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে পেট্রোল বোমা ছুঁড়ছে।