টাঙ্গাইলে চুরি হওয়া শিশু উদ্ধার, গ্রেফতার ৩

64

টাঙ্গাইলের সখীপুরে গভীর রাতে সিঁধ কেটে ঘরে প্রবেশ করে ঘুমন্ত অবস্থায় মায়ের কোল থেকে শিশু চুরির ঘটনায় ওই শিশু জুনায়েদকে উদ্ধার করা হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) ভোরে দেলদুয়ার উপজেলার জাঙ্গালিয়া গ্রাম থেকে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) ও সখীপুর থানা পুলিশ যৌথ অভিযান করে ওই শিশুকে উদ্ধার করে। বিষয়টি পিবিআই টাঙ্গাইলের এসআই মোহাম্মদ আশরাফ উদ্দিন খান নিশ্চিত করেছেন। শিশুটি বর্তমানে পিবিআই টাঙ্গাইলের হেফাজতে রয়েছে। এ ঘটনায় তিনজনকে গ্রেফতারও করা হয়েছে।

এসআই মোহাম্মদ আশরাফ উদ্দিন খান জানান, সখীপুর থানা পুলিশ ও পিবিআই এর যৌথ উদ্যোগে সোমবার (৫ এপ্রিল) রাত ১০টা থেকে অভিযান পরিচালনা করা হয়। পরে মঙ্গলবার (৬ এপ্রিল) ভোরে শিশুটিকে উদ্ধার করা হয়। শিশুকে বিক্রি করার জন্য তারা জাঙ্গালিয়া গ্রামে নিয়ে রেখেছিলো। বিক্রির আগেই আমরা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছি। শিশুটিকে পরিবারের কাছে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে। এ ঘটনায় কালিহাতীর হাবলা গ্রামের চিহ্নিত পরান ডাকাত ও তার স্ত্রীসহ তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত বুধবার (৩১ মার্চ) দিবাগত রাত ৩টার দিকে টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার শোলা প্রতিমা এলাকার ট্রাক চালক আছর উদ্দিনের ঘরে প্রবেশ করে দুর্বৃত্তরা তার স্ত্রী কল্পনা আক্তারের কোল থেকে আড়াই মাসের শিশু জোনায়েদকে চুরি করে পালিয়ে যায়। পরে বৃহস্পতিবার (১ এপ্রিল) শিশুর মা কল্পনা আক্তার বাদি হয়ে সখীপুর থানায় মামলা দায়ের করেন।