টুইট ক্ষুব্ধ মমতার

55

বাংলায় বিধানসভা নির্বাচন যত এগোচ্ছে, তত কেন্দ্রীয় বাহিনীর বিরুদ্ধে অভিযোগ বাড়ছে তৃণমূলের। শাসক দলের নেতা-নেত্রীরা অভিযোগ করছেন, বিভিন্ন কেন্দ্রে ভোটারদের প্রভাবিত করার চেষ্টা করছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। একই অভিযোগ শোনা গিয়েছে মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখে। তৃতীয় দফার ভোটগ্রহণ যখন চলছে, তখন টুইট করে ফের ক্ষোভ উগরে দিলেন মমতা।

মঙ্গলবার একটি ভিডিয়ো শেয়ার করে মমতার টুইট, ‘কেন্দ্রীয় বাহিনীর অপব্যবহার চলছেই। উর্দি পরা বাহিনীকে বিভিন্ন জায়গায় দেখা যাচ্ছে প্রকাশ্যে তৃণমূল প্রার্থীদের ভয় দেখতে কিংবা মানুষকে একটি দলকে ভোট দেওয়ার জন্য প্রভাবিত করতে। আমরা বারবার এই সব ঘটনা তুলে ধরলেও নির্বাচন কমিশন নীরব দর্শক’।

নিজের টুইটের সঙ্গে যে ভিডিয়ো শেয়ার করেন মমতা, সেখানে দেখা যাচ্ছে, তৃতীয় দফার ভোটগ্রহণ চলাকালীন ভোটারদের প্রভাবিত করছে কেন্দ্রীয় বাহিনী, সংবাদমাধ্যমের সামনে এমনটাই অভিযোগ করছেন কয়েক জন। এই ভিডিয়ো ফুটেজের অংশ বিশেষ একটি সংবাদমাধ্যমের তোলা।

দ্বিতীয় দফায় নন্দীগ্রামে ভোটের দিনেও কেন্দ্রীয় বাহিনীর ভূমিকায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছিল তৃণমূল। নির্বাচন চলাকালীন বয়ালের একটি বুথে পৌঁছে ‘ছাপ্পা ভোটের অভিযোগ’ করেছিলেন মমতা। শুধুমাত্র নন্দীগ্রাম নিয়েই তৃণমূলের তরফে নির্বাচন কমিশনে ৬৩টি অভিযোগ জমা পড়েছিল। যদিও মমতার অভিযোগ খারিজ করে পাল্টা চিঠি দেয় কমিশন।

তৃণমূল অবশ্য বারবার অভিযোগ করেছে, কেন্দ্রীয় বাহিনীকে ভোটের কাজে ব্যবহার করছে বিজেপি। কখনও ভোটারদের ভয় দেখানো, কখনও বিজেপির হয়ে টাকা বিলি করারও অভিযোগ তুলেছেন মমতা। তৃতীয় দফাতেও একই অভিযোগ উঠল। এ বার টুইট করে অভিযোগ করলেন মমতা।