ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ৪ হেফাজত কর্মীকে ছাড়িয়ে নিতে আ’লীগ সভাপতির তদবির

102

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বাঞ্ছারামপুরে ফেসবুকে রাষ্ট্রবিরোধী উস্কানিমূলক স্ট্যাটাস দেওয়ায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি অবনতির চেষ্টার অভিযোগে ৪ হেফাজতে ইসলামের কর্মীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার সকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়া আদালতের মাধ্যমে তাদের জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। তাদের থানা থেকে ছাড়িয়ে নিতে ফরদাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল আজিজ গভীর রাত পর্যন্ত তদবির করে এলাকাবাসীর তোপের মুখে ব্যর্থ হন। এ বিষয়ে ফরদাবাদ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল আজিজ বলেন, এলাকার লোকজন আমাকে বলায় থানায় গিয়েছিলাম তাদের ব্যাপারে কথা বলতে। পরে ওসি সাহেব বললো ছেলেরা নাকি হেফাজতের নেতা মামুনুল হকের পক্ষে এবং রাষ্ট্রবিরোধী উস্কনিমুলক লেখা লিখছে ফেসবুকে। পরে আমি থানা থেকে চলে এসেছি ।

খবর নিয়ে জানা যায়, বুধবার বাঞ্ছারামপুর উপজেলার ফরদাবাদ ইউনিয়নের পূর্বহাটি গ্রাম থেকে বাঞ্ছারামপুর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. শফিকুল ইসলামের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়।গ্রেফতারকৃতরা হলেন- পূর্বহাটি (পূর্বকান্দি) গ্রামের রোকন উদ্দিনের ছেলে তাজুল ইসলাম (১৯), হোসেন বেগের ছেলে নাছির মিয়া (২৩), মাইনুদ্দিনের ছেলে রুহুল আমিন সাইফি (২৩) এবং মজিবর রহমানের ছেলে বাইজিদ মিয়া (১৮)। 

এ বিষয়ে বাঞ্ছারামপুর মডেল থানার ওসি রাজু আহম্মেদ বলেন, আটককৃতরা রাষ্ট্রবিরোধী ও উস্কানিমুলক স্ট্যাটাস দিয়েছে ফেসবুকে। তাদের ৪ জনকেসহ আরও কয়েকজনকে অজ্ঞাতনামা আসামি করে সাইবার ক্রাইম আইনে মামলা করা হয়েছে।