ইউক্রেনের ৭ রুশ জেনারেলকে হত্যার দাবি

36

চলমান যুদ্ধে আরও কমপক্ষে সাতজন রুশ জেনারেল নিহত হয়েছেন বলে দাবি করেছে ইউক্রেন কর্তৃপক্ষ। যাদের মধ্যে রুশ লেফটেন্যান্ট জেনারেল ইয়াকভ রেজান্তসেভও রয়েছেন, যিনি খেরসন অঞ্চলে নিহত হয়েছেন বলে দাবি করা হচ্ছে।

ইউক্রেনের এই দাবি সত্য হলে, এটা যে কোনো সেনাবাহিনীর জন্য একটি অসামান্য ও বিস্ময়কর হতাহতের হার বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। 

এছাড়াও ইউক্রেনের সৈন্যরা কোনোভাবেই আত্মসমর্পণ করবেন না বলেই হুঙ্কার দিয়েছেন।

রোববার প্রকাশিত ইউক্রেন সেনাবাহিনীর সর্বশেষ গোয়েন্দা তথ্যে, রাশিয়ার এই ক্ষয়ক্ষতির জন্য যুদ্ধক্ষেত্রে বহু কমান্ডারের উপস্থিতির জন্য কমান্ড এবং নিয়ন্ত্রণে অসুবিধা এবং সেইসঙ্গে রাশিয়ান সৈন্যদের পারদর্শীতার দুর্বলতাকেই দায়ী করেছে যুক্তরাজ্যের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়।

যুক্তরাজ্যের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলছে, “রাশিয়ান কমান্ডাররা খুব কম সময়ই তাদের অধস্তনদের প্রতি অপারেশনাল কর্তৃত্ব অর্পণ করেন, যার ফলস্বরূপ তারা গুরুত্বপূর্ণ নেতৃত্বের অভিজ্ঞতা অর্জন করতে পারে না। আর এর ফলে এমন একটি অবস্থা তৈরি হয়েছে, যা চরম মুহূর্তে দ্রুত সাড়া দিতে এবং যুদ্ধক্ষেত্রে তার দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তন করতেও অক্ষম।”

তবে রাশিয়ার পক্ষে থেকে এ বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি বলেই জানিয়েছে বিবিসি।

এদিকে, মারিউপোলের আজভস্টাল স্টিলওয়ার্কস থেকে এক প্রেস কনফারেন্স করে লেফটেন্যান্ট ইলিয়া সামোইলেঙ্কো নামে এক ইউক্রেনীয় যোদ্ধা বলেছেন, “আত্মসমর্পণ কখনো বিকল্প নয়, কারণ রাশিয়া আমাদের জীবনের ব্যাপারে আগ্রহী নয়”।

ইউক্রেনীয় ওই লেফটেন্যান্ট আরও বলেন, “আমাদের জন্য আত্মসমর্পণ অগ্রহণযোগ্য। আমরা শত্রুকে এত বড় উপহার দিতে পারি না। আমার কাছে বন্দী হওয়া মানে মরে যাওয়া।”

তিনি যোগ করেন, “আমরা এমন একটা আগ্রাসী শত্রু দলের বিরুদ্ধে, তাদের বর্বরতার বিরুদ্ধে লড়াই করছি, যারা ইউক্রেনে সন্ত্রাস নিয়ে এসেছে।”

সূত্র: বিবিসি